State Times Bangladesh

কারাগারে ‘আত্মহত্যা’ করেছেন অ্যান্টিভাইরাস স্রষ্টা ম্যাকএ্যাফি

অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশিত: ১০:১০, ২৪ জুন ২০২১

আপডেট: ১০:৫৯, ২৪ জুন ২০২১

কারাগারে ‘আত্মহত্যা’ করেছেন অ্যান্টিভাইরাস স্রষ্টা ম্যাকএ্যাফি

স্পেনের বার্সেলোনার একটি কারাগার থেকে সফটওয়্যার মুঘল জন ম্যাকএ্যাফির মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। স্পেনের একটি আদালত তাকে কর ফাঁকির অভিযোগে যুক্তরাষ্ট্রে প্রত্যর্পণে সম্মত হওয়ার কয়েক ঘণ্টার মাথায় কারাগারে তার মরদেহ পান কর্মকর্তারা। খবর বিবিসির।

কাতালান বিচার বিভাগ জানিয়েছে, কারাগারের চিকিৎসকরা তাকে বাঁচানোর চেষ্টা করেছিলেন। কিন্তু তাদের যাবতীয় প্রচেষ্টা ব্যর্থ হয়। সবকিছু ইঙ্গিত করছে, ম্যাকএ্যাফি আত্মহত্যা করেছেন।

ম্যাকএ্যাফির আইনজীবীর বরাত দিয়ে রয়টার্স জানিয়েছে, প্রিজন সেলে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছেন তিনি।

গত বছরের অক্টোবরে ইস্তাম্বুলগামী একটি ফ্লাইটে ওঠার আগে স্পেনের বার্সেলোনা বিমানবন্দরে গ্রেপ্তার হন ম্যাকাফি। এর পর থেকে এ কম্পিউটার প্রোগ্রামার বন্দি ছিলেন স্পেনের কাতালোনিয়ার ব্রায়ানস-২ কারাগারে।

তার বিরুদ্ধে বিপুল পরিমাণ উপার্জন সত্ত্বেও চার বছর ধরে ট্যাক্স রিটার্ন জমা না দেওয়ার অভিযোগ আনা হয়। যুক্তরাষ্ট্রের বিচার বিভাগ জানিয়েছে, ম্যাকএ্যাফি তার নিজের আয় তার মনোনীত অন্য লোকদের নানা অ্যাকাউন্টে জমা দিয়েছিলেন। ২০১৪ থেকে ২০১৮ পর্যন্ত তিনি ট্যাক্স রিটার্ন জমা দেননি। এ ছাড়া তার বিরুদ্ধে বেনামে থাকা প্রমোদতরী এবং বাড়ি-জমির মতো সম্পদ গোপন করার অভিযোগ ছিল।

প্রযুক্তির জগতে বহুল আলোচিত ম্যাকএ্যাফি সবার নজর কাড়েন ১৯৮০-এর দশকে। তখন ম্যাকএ্যাফি ভাইরাসস্ক্যান নামে প্রথম বাণিজ্যিক এ্যান্টিভাইরাস সফটওয়্যার বাজারে ছাড়েন তিনি। পরে এটি শত শত কোটি ডলারের এক শিল্পে পরিণত হয়। অবশ্য পরে সেই ব্যবসা ইনটেল কোম্পানির কাছে বিক্রি করে দেন। তবে পরবর্তীতে নিজের উদ্যোগে বিভিন্ন সাইবার-সিকিউরিটি পণ্য তৈরি করছেন। তিনি নিজে বহুবার ট্যাক্স দেওয়ার ব্যাপারে উষ্মা প্রকাশ করেছিলেন। ট্যাক্স বিষয়টিকেই অবৈধ মনে করতেন এই সফটওয়্যার মুঘল। ২০১৬ ও ২০২০ সালে ম্যাকএ্যাফি লিবার্টারিয়ান পার্টি থেকে যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে প্রার্থী হবার চেষ্টা করে ব্যর্থ হন।