State Times Bangladesh

অস্থিরতার মধ্যেই ১ হাজার মানুষকে মিয়ানমারে ফেরত পাঠাল মালয়েশিয়া

অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশিত: ১১:৩৬, ২৪ ফেব্রুয়ারি ২০২১

আপডেট: ১৬:১২, ২৪ ফেব্রুয়ারি ২০২১

অস্থিরতার মধ্যেই ১ হাজার মানুষকে মিয়ানমারে ফেরত পাঠাল মালয়েশিয়া

সামরিক অভ্যুত্থানের পর চলমান অস্থিরতার মধ্যেই ১ হাজারের বেশি মানুষকে মিয়ানমারে ফেরত পাঠিয়েছে মালয়েশিয়া। মানবাধিকার সংগঠনগুলোর আহ্বান উপেক্ষা করেই তাদের ফেরত পাঠানো হয়েছে।

জাতিসংঘ বলছে, যাদের ফেরত পাঠানো হয়েছে তাদের মধ্যে সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের মানুষও রয়েছেন। কিন্তু মিয়ানমার বলছে, কোনো রোহিঙ্গাকেই ফেরত পাঠানো হয়নি। সবাই স্বেচ্ছায় নিজের দেশে ফিরেছেন। কাউকে বাধ্য করা হয়নি।

মালয়েশিয়ান অভিবাসন বিভাগ থেকে বিবৃতিতে বলা হয়েছে, ‘তাদের মধ্যে কোনো রোহিঙ্গা নেই। দেশে ফেরার শর্তেই তারা মালয়েশিয়ায় ছিলেন।’

ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসি জানিয়েছে, মালয়েশিয়ান কর্তৃপক্ষ বিদেশি কর্মকর্তাদের এক বছর ধরে শরণার্থী শিবিরে প্রবেশ করতে দিচ্ছে না। তাই প্রকৃত অবস্থা বোঝা সম্ভব হচ্ছে না।

চলতি মাসের শুরু থেকে মিয়ানমারে অস্থিরতা বিরাজ করছে। সু চিকে হটিয়ে ক্ষমতা দখল করেছে সেনাবাহিনী। এই অবস্থায় মালয়েশিয়া থেকে যারা গেছেন, তারা আরও বিপদে পড়তে পারেন।

গত বছরের নভেম্বরে মিয়ানমারের সাধারণ নির্বাচনে ভূমিধ্বস জয় পায় সু চির দল ন্যাশনাল লিগ ফর ডেমোক্রেসি (এনএলডি)। কিন্তু সেনাসমর্থিত ইউনিয়ন সলিডারিটি অ্যান্ড ডেভেলপমেন্ট পার্টি (ইউএসডিপি) নির্বাচনে কারচুপির অভিযোগ তোলে। যদিও কোন প্রমাণ সেনাবাহিনী দিতে পারেনি।

মালয়েশিয়া থেকে যাদের মিয়ানমারে পাঠানো হয়েছে, তাদের মঙ্গলবার নৌবাহিনীর তিনটি জাহাজে ওঠানো হয়।

অভিবাসীদের ফেরত পাঠানোর এই প্রক্রিয়া স্থগিত করতে কুয়ালালামপুর হাইকোর্ট থেকে এর আগে নির্দেশনা দেওয়া হয়। কিন্তু সরকার তাতে কান দেয়নি।

সম্পর্কিত বিষয়: