State Times Bangladesh

বাবুই পাখির ছানা হত্যার দায়ে ৩ জনের জেল

নিজস্ব প্রতিবেদক

প্রকাশিত: ১৮:৩৬, ১২ এপ্রিল ২০২১

আপডেট: ১৮:৪২, ১২ এপ্রিল ২০২১

বাবুই পাখির ছানা হত্যার দায়ে ৩ জনের জেল

ধান খাওয়ার অপরাধে শতাধিক বাবুই পাখির ছানা হত্যা করা হয়

পিরোজপুরের ইন্দুরকানীতে  বাবুই পাখির বাসা ভাঙা ও শতাধিক পাখির ছানা হত্যার অপরাধে ভ্রাম্যমান আদালতে তিন জন কৃষকের কারাদণ্ড প্রদান করা হয়েছে।

সোমবার দুপুরে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে পিরোজপুর জেলার নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট অশোক কুমার চাকমা ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালনা করেন।

ম্যাজিস্ট্রেট অশোক কুমার চাকমা বলেন, শনিবার বিকালেসহ বিভিন্ন সময় বাবুই পাখির বাসা ভাঙা ও ছানা হত্যার অপরাধে বন্য প্রাণী সংরক্ষণ আইনে দক্ষিণ ভবানীপুরের কৃষক লুৎফর রহমানকে ১৫ দিন, সুনীল বেপারীকে ৭ দিন ও সুনীল মিস্ত্রীকে ৩ দিনের কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে।

ইন্দুরকানী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) হুমায়ুন কবির বলেন, বন্য প্রাণী সংরক্ষণ আইনে এ দণ্ড প্রদান করা হয়। দণ্ডপ্রাপ্তদের জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে। 

উল্লেখ্য, গত শনিবার ক্ষেতের বোরো ধান খাওয়ার অপরাধে শতাধিক বাবুই পাখির ছানা হত্যা করেন তিন কৃষক। শনিবার  সন্ধ্যায় পিরোজপুরের ইন্দুরকানী উপজেলার সদর ইউনিয়নের দক্ষিন ভবানীপুর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

স্থানীয়রা জানান, ওই গ্রামে বোরো ধান চাষ করছেন স্থাণীয়  হেমায়েত হোসেন মোল্লা সহ কিছু কৃষক । কিন্তু গত কয়েক দিন ধরে সেই জমির বোরো ধান খায় বিভিন্ন ধরনের পাখি। কিন্তু ওই  জমির পাশেই দুইটি তাল গাছে রয়েছে বাবুই পাখির প্রায়  শতাধিক   বাসা। পাখিতে ধান খেয়েছে এতে ক্ষিপ্ত হন  ক্ষেত মালিক স্থাণীয়  হেমায়েত হোসেন মোল্লা।

তারই নির্দেশে  গত ২-৩ দিন ধরে ওই গাছে থাকা বাবুই পাখির বাসাগুলো ভেঙ্গে ও এর ভেতর থাকা ছানাগুলো হত্যা করেন তার ছোট ভাই লুৎফর রহমান মোল্লা।

শনিবার সন্ধ্যার আগে ওই জমির মালিক হোমায়েত হোসেন মোল্লার ছোট ভাই  লুৎফর রহমান মোল্লার নেতৃত্বে  শুনিল সহ ৩ জনে মিলে বড় একটি বাঁশ দিয়ে পিটিয়ে ওই তাল গাছে থাকা বাবুই পাখির বাসাগুলো ভেঙ্গে মাটিতে ফেলে দেন।

এসময় ওই সব বাসায় থাকা বাবুই পাখির   ছোট ছোট ছানাগুলোও মেরে ফেলেন তারা। এ ছাড়া কিছু ছানা মেরে পাশের খালে ফেলে দেন।
 

সম্পর্কিত বিষয়: